1. info@dainikbd24.com : দৈনিক বাংলাদেশ : দৈনিক বাংলাদেশ
শুক্রবার, ০৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৯:৫৪ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
অবশেষে যাত্রা করলো মাদারীপুর ২৫০ শয্যা হাসপাতাল রোগী সেবা কার্যক্রম গাইবান্ধা বোয়ালী ইউনিয়নের আশ্রয়ণ প্রকল্পের পরিবারের মাঝে কম্বল বিতরণ গোপালগঞ্জে মাদক বিরোধী সমাবেশ ও শোভাযাত্রা গোপালগঞ্জে পিতার সন্ধানের দাবিতে পরিবারে সংবাদ সম্মেলন সুন্দরগঞ্জে অগ্নিকাণ্ডে দুইটি বসতবাড়ি ভষ্মিভূত পলাশবাড়ীতে শেখ কামাল আন্তঃস্কুল ও মাদ্রাসা অ্যাথলেটিক্স অনুষ্ঠিত গোপালগঞ্জে জমিজমা বিরোধের জেরে ভাতিজাদের হাতে চাচা নিহত কোটালীপাড়া পৌর নির্বাচনে সম্ভাব্য ১৬ প্রার্থী সাদুল্লাপুরে জোনার ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে কুরআন শরীফ প্রদান। গোপালগঞ্জে বিদ্যা ও জ্ঞানের দেবী সরস্বতী পূঁজা অনুষ্ঠিত

শীত উপেক্ষা করে গভীর রাতে কম্বল দিলেন জেলা প্রশাসক

স্টাফ রিপোর্টার,গোপালগঞ্জঃ
  • প্রকাশের সময় : রবিবার, ১৮ ডিসেম্বর, ২০২২

গোপালগঞ্জ শহরের শিশুবন এলাকার বাসিন্দা রাশিদা বেগম (৪০)। শীত উপক্ষো করে এসেছিলেন কম্বল নিতে। তার সংসারে রয়েছে স্বামী ও সন্তান। স্বামী দিনমজুর করে যে আয় করেন তা দিয়ে সংসার চালাতে হিমশীম খেতে হয় সেখানে শীতবস্ত্র কেনা তার কাছে আকাশ কুসুম। তবে জেলা প্রশাসকের কাছ থেকে কম্বল পেয়ে খুশি তিনি। জেলায় হঠাত করে শীত পড়ায় যে কম্বল পেয়ছে তার দিয়ে অন্তত শীত নিবারণ করতে পারবেন তিনি।

শনিবার (১৭ ডিসেম্বর) দিবাগত রাত ১১টায় শীত উপেক্ষা করে জেলা শহরের শিশুবন ও সোনাকুড় এলাকার তিন শতাধিত অসহায় ও দু:স্থ পরিবারের মাঝে কম্বল বিতরন করেন জেলা প্রশাসক কাজী মাহবুবুল আলম। এসব এলাকায় ঘুরে ঘুরে এসব অসহায় ও দু:স্থ পরিবারের হাতে দু’টি করে কম্বল তুলে দেন তিনি। কম্বল বিতরণকালে তিনি এসব পরিবারের খোঁজ খবরও নেন।

এসময় অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক একেএম হেদায়েতুল ইসলাম, সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মহসীন উদ্দিন, পৌর কাউন্সিলর শফিকুর রহমান শুক্তিসহ প্রশাসনের কমর্কর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

শিশুবন এলাকার বাসিন্দা কুলছুম বেগম বলেন, স্বামী দিন মজুরের কাজ করেন। সংসাবে ছেলে মেয়ে রয়েছে। স্বামী যা আয় করনে তা দিয়ে সাংসার চলে না সেখানে শীতবস্ত্র কিনবো বিভাবে। তবে জেলা প্রশাসক স্যার আমাকে দুটি কম্বল দিয়েছেন এ দিয়ে শীতের কস্ট কিছুটা লাঘব হবে।

একই এলাকার বাসিন্দা নূর আলম বলেন, আমি দিন মজুরের কাজ করি। যা আয় হয় তা দিয়ে কোন রকমে সংসার চালাতে পারি। কিন্তু হঠাত করে শীত পড়ায় খুব কষ্ট হচ্ছিল। এবার কম্বল পেলাম এতে খুব খুশি।

গোপালগঞ্জের জেলা প্রশাসক কাজী মাহবুবুল আলম বলেন, মানরীয়প্রধানমন্ত্রী সকলের জন্য শীতবস্ত্রের ব্যাবস্থা করেছেন। তারই অংশ হিসাবে জেলা প্রমাসনের উধ্যোগে শীতবস্ত্র বিতরন করা হচ্ছে। শীতে যাতে কেউ কষ্ট না পায় সেজন্য কম্বল বিতরন অব্যাহত থাকবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর...

© All Rights Reserved© 2022 DainikBD24

Theme Customized BY Sky Host BD